Text size A A A
Color C C C C
পাতা

সিটিজেন চার্টার

গোপালগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি

           

‘‘ গ্রাহক সেবা নির্দেশিকা ’’

 

গোপালগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি

কারারগাতী,গোপালগঞ্জ।

 

টেলিফোন নম্বর সমূহঃ

1)            দপ্তর প্রধানঃ

v         জেনারেল ম্যানেজার                                   ঃ ০১৭৬৯৪০০০৩২

v         ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার                           ঃ ০১৭৬৯৪০০১৫৫

v        এজিএম (জিএস)                                       ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৭০

v        এজিএম (এমএস)                                       ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৬৯

v        এজিএম (অর্থ)                                          ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৬৮

v        এজিএম (নিপর)                                        ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৬৭

2)           অন্যান্য অফিসঃ

Ø        কাশিয়ানী বিলিং সম্পন্ন এরিয়া অফিস               ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৬৫

Ø        টুঙ্গীপাড়া এরিয়া অফিস                                ঃ ০১৭৬৯৪০১২১৪

Ø        কোটালীপাড়া বিলিং সম্পন্ন এরিয়া অফিস           ঃ ০১৭৬৯৪০০৪৬৬

Ø        রামদিয়া অভিযোগকেন্দ্র                                ঃ ০১৭৬৯৪০১২১৬

Ø        সদর দপ্তর অভিযোগ কেন্দ্র                             ঃ ০১৭৬৯৪০১২১০

Ø        মুকসুদপুর অভিযোগ কেন্দ্র                             ঃ০১৭৬৯৪০১২১২

Ø        টেকেরহাট এরিয়া অফিস                              ঃ ০১৭৬৯৪০১২১৫

Ø        রাধাগঞ্জ অভিযোগ কেন্দ্র                                ঃ ০১৭৬৯৪০১২১২

Ø        সাতপাড় অভিযোগ কেন্দ্র                               ঃ ০১৭৬৯৪০১২১৮

 

 

ফোন নম্বরঃ ০২-৬৬৮৫৭১৪

ই-মেইলঃ gopalgonj_pbs@yahoo.com

Web : www.gopalgonjpbs.org.bd

 

                         

বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হোন এবং অন্যকে ব্যবহারের সুযোগ দিন

 

 

 

এক অবস্থান সেবা

 

গোপালগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি এর সদর দপ্তরসহ জোনাল অফিসে ‘‘এক অবস্থানে সেবা’’ এ নতুন বিদ্যুৎ সংযোগ, বিদ্যুৎ বিভ্রাট/বিল/মিটার সংক্রান্ত অভিযোগ,বিল পরিশোধের ব্যবস্থাসহ সকল ধরনের অভিযোগ জানানো যাবে এবং এতদসংক্রান্ত বিষয়ে তথ্য পাওয়া যাবে।

 

নতুন সংযোগ গ্রহণ

·         ‘‘ এক অবস্থানে সেবা কেন্দ্র’’ থেকে নতুন সংযোগের আবেদনপত্র পাওয়া যাবে।

·         আবেদনপত্রটি যথাযথভাবে পূরণ করে নির্ধারিত আবেদন ফি সদর দপ্তর/ জোনাল অফিসের ক্যাশ শাখায়  জমা প্রদান করে জমা রশিদ ও প্রয়োজনীয় দলিলাদিসহ‘‘এক অবস্থানে সেবা’’ এ জমা প্রদান করলে আপনাকে একটি নিবন্ধন নম্বরসহ পরবর্তী আগমনের তারিখ জানানো হবে।

·         আবেদন সমীক্ষা, স্টেকিং&ও অনুমোদন সম্পন্ন করে প্রয়োজনীয় শর্তাদি, নীতিমালা্ও প্রাক্কলন (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে) জানিয়ে পত্র প্রদান করা হবে।

·         ‘‘এক অবস্থানে সেবা কেন্দ্র’’ থেকে নতুন সংযোগ গ্রহনের নিয়মাবলী ও এতদসংক্রান্ত প্রয়োজনীয় তথ্যাবলী সম্বলিত একটি ‘‘গ্রাহক নির্দেশিকা’’ সংগ্রহ করা যাবে।

 

নতুন সংযোগের আবেদন ফি

 

(1)      বাড়ী/বানিজ্যিক/দলগত/দাতব্য প্রতিষ্ঠানের বিদ্যুৎ সংযোগের জন্য নিম্নবর্নিত হারে সমীক্ষা ফি আবেদনের সাথে জমা দিতে হবে।

(ক) ১ হইতে ৯ জন পর্যন্ত গ্রাহকের ক্ষেত্রেঃ   ১০০.০০ টাকা (জন প্রতি)

(খ) ১০ হইতে ২০ জন পর্যন্ত গ্রপ সম্বলিত গ্রাহকের ক্ষেত্রেঃ  ১৫০০.০০ টাকা (নির্ধারিত)

(গ) ২১ জন ও তদুর্দ্ধ গ্রুপ সম্বলিত গ্রাহকের ক্ষেত্রে ঃ ২০০০.০০ টাকা ( নির্ধারিত)

 

(2)      সেচ কার্যে বিদ্যুৎ সংযোগের জন্য আবেদনের সহিত  ২৫০.০০ টাকা মাত্র সমীক্ষা ফি জমা প্রদান করিতে হইবে। সংযোগের চুক্তি সম্পাদনের প্রাক্কালে আবেদন কারীর ০২ কপি রঙ্গিন ছবি জমা দিতে হইবে।

(3)     ১ নং&ও ২ নং এ উল্লেখিত উভয় লোডের জন্য একই অবস্থানে একটি আবেদন পত্র ব্যবহারের ক্ষেত্রে সমীক্ষা বাবদ সর্ব সাকুল্যে ২৫০.০০টাকা জমা প্রদান করিতে হইবে।

(4)      যে কোন ধরনের অস্থায়ী সংযোগের জন্য ১৫০০.০০টাকা সমীক্ষা ফি বাবদ জমা প্রদান করিতে হইবে।

(5)      বর্নিত সংযোগ্ও শিল্প প্রতিষ্ঠান ব্যাতিত অন্য কোন সাময়িক/ স্থায়ী সংযোগের ক্ষেত্রে ১৫০০.০০টাকা সমীক্ষা ফি জমা প্রদান করিতে হইবে।

(6)     শিল্প সংযোগের আবেদন করার সময় আবেদন কারীকে বিদ্যুৎ সংযোগের জন্য প্রাথমিক সমীক্ষা সম্পাদনের জন্য ২৫০০.০০ টাকা মাত্র সমিতি এর অনুকুলে নগদ জমা দিতে হবে।(অফেরত যোগ্য)।

২। শিল্প প্রতিষ্ঠানের লে- আউট প্লান সহ প্রস্তাবিত বৈদুতিক যন্ত্রপাতির অবস্থান সম্বলিত ড্রইং&ও বিস্তারিত বিবরন জমা দিতে হবে।

৩। সাময়িক সংযোগ এবং বৈদুতিক লোডের নিশ্চয়তা চা্ওয়া হইলে এবং সমিতি কর্তৃক এতদসংক্রান্ত সম্মতিপত্র জারিকরা হইলে সংরক্ষন ফি স্থায়ী সংযোগ হ্ওয়া পর্যন্ত প্রযোজ্য হবে।

 

 

নতুন সংযোগের জন্য প্রয়োজনীয় দলিলাদি

·         নতুন সংযোগের জন্য আবেদনপত্রের সাথে নিম্নোক্ত দলিলাদি দাখিল করতে হবেঃ

·         সংযোগ গ্রহনকারীর পাসপোর্ট সাইজের ২কপি সত্যায়িত ছবি।

·         জমির মালিকানা দলিলের সত্যায়িত কপি।

·         যাথাযথ কর্তৃপক্ষ কর্তৃক নাগরিকত্ব সনদ।

·         পৌরসভা/ স্থানীয় কর্তৃপক্ষ কর্তৃক  নাম জারীসহ হোল্ডিং নম্বর এর সত্যায়িত কপি ও দলিল অথবা দাগ নম্বর, খতিয়ান নম্বর, জমির দলিল, কমিশনারের সার্টিফিকেট (যেখানে নকশা অনুমোদন নাই)।

·         লোড চাহিদার পরিমান।

·         জমি/ ভবনের ভাড়ার (যদি প্রযোজ্য হয়) দলিল।

·         ভাড়ার ক্ষেত্রে মালিকের সম্মতি পত্রের দলিল।

·         পূর্বের কোন সংযোগ থাকলে ঐ সংযোগের বিবরন ও সর্বশেষ পরিশোধিত বিলের কপি।

·         অস্থায়ী সংযোগের ক্ষেত্রে বিবরন (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।

·         বৈধ লাইসেন্সধারী কর্তৃক প্রদত্ত ইন্সটলেশন টেস্ট (ওয়্যারিং) সার্টিফিকেট।

·         ট্রেড লাইসেন্স (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।

·         সংযোগ স্থানের নির্দেশক  নকশা।

·         শিল্প প্রতিষ্ঠান স্থাপনের নির্মিত্ত যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমোদন।

·         পাওয়ার ফ্যাক্টর ইমপ্রুভমেন্ট প্লান্ট স্থাপন (শিল্পের ক্ষেত্রে)।

·         সার্ভিস লাইন এর দৈর্ঘ্য ১০০ ফুটের বেশী হবে না।

·         বহুতল আবাসিক/ বানিজ্যিক ভবন নির্মাতা ও মালিকের সাথে ফ্ল্যাট মালিকের চুক্তিনামার সত্যায়িত কপি।

·         পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।

 

নতুন সংযোগের জন্য জামানতের পরিমাণ

 

ক্রঃ নং

বিবরন

জামানতের পরিমাণ

০১

বাড়ী, দোকান, দাতব্য প্রতিষ্ঠান

ক) লোড-০-০.৫ কিঃওঃ পর্যন্ত

খ) লোড ০.৫-১ কিঃওঃ পর্যন্ত

গ) লোড- ১ কিঃওঃ এর উর্দ্ধে

 

ক) ৫০০.০০ টাকা

খ) ৬০০.০০ টাকা

গ) প্রথম ১কিঃওঃ ৬০০.০০ টাকা পরবর্তী প্রতি কিঃওঃ ২০০.০০টাকা হারে।

০২

রাস্তার বাতি

ছয় মাসের ন্যুনতম বিল (২০৭০.০০টাকা)

০৩

কৃষি

ক) অগভীর নলকুপের জন্য

 

 

 

খ) এল,এল,পি

 

গ) গভীর নলকুপের জন্য

 

ক) প্রতি ঘোড়া ´১২৫.০০´৫মাস সর্বনিম্ন ৩০০০.০০ টাকার কম নহে।

 

খ) ঐ

 

 

গ) প্রতি ঘোড়া ´১২৫.০০´৮মাস

০৪

শিল্প

চুক্তিবদ্ধ লোড´৮ঘন্টা´২৫দিন´২মাস´রেট

 

 

১৫০ কিঃ ওঃ এর উর্দ্ধে সংযোগের জন্য গ্রাহককে আরও যে সকল দলিলাদি দাখিল করতে হবে

 

·         পৌরসভা অথবা সংশ্লিষ্ট হাউজিং কর্তৃপক্ষ কর্তৃক অনুমোদিত বাড়ীর নকশায় (সত্যায়িত কপি) উপকেন্দ্রের লে-আউট প্ল্যান।

·         ফ্লোর প্লানের সঠিক পরিমাপসহ স্থাপনা অভ্যন্তরিন ওয়্যারিং সিংগেল লাইন ডায়াগ্রাম।

·         অভ্যন্তরিন ওয়্যারিং সম্পাদনের কন্ট্রাক্ট ফরম ও জব অর্ডার ।

·         ওয়্যারিং মালামালের ক্রয় রশিদ।

·         উপকেন্দ্রে স্থাপিত সব যন্ত্রপাতির স্পেসিফিকেশন ও টেস্ট রেজাল্ট এবং বৈদ্যুতিক উপদেষ্টা ও প্রধান বিদ্যুৎ পরিদর্শকের দপ্তর থেকে প্রদত্ত উপকেন্দ্র সংক্রান্ত ছাড়পত্র।

·         ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স এর ছাড়পত্রের কপি (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।

অস্থায়ী বিদ্যুৎ সংযোগ

v         সামাজিক ও ধর্মীয় অনুষ্ঠান, মেলা,রাস্তা,ব্রীজ এর নির্মান কাজ ইত্যাদিতে অস্থায়ী বিদ্যুৎ সংযোগ দেয়া হয়। অস্থায়ী বিদ্যুৎ সংযোগের জন্য নিম্নোক্ত অর্থাদি জমা দিতে হবে।

ক) মালামালের মূল্যের ১১০% মূল্য জমা দিতে হবে। সংযোগ শেষে ব্যবহারযোগ্য মালামালের ১০০% মূল্য ফেরত দেয়া হবে।

খ) লেবার কস্ট, সংযোগ ও বিচ্ছিন্ন ফি।

গ) শিল্প রেটে প্রাক্কলিত বিদ্যুৎ বিল।

ঘ) ট্রান্সফরমার উঠানো/নামানো ফি এবং ভাড়া।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

লোড পরিবর্তন

v         নির্ধারিত সমীক্ষা ফি জমা দিয়ে আবেদন করতে হবে।

v         লোড বৃদ্ধির জন্য প্রযোজ্য অনুযায়ী কিলোওয়াট প্রতি বিদ্যমান হারে জামানত প্রদান করতে হবে।

v         অতিরিক্ত লোডের জন্য লাইন, ট্রান্সফরমার,সার্ভিস তার/ মিটার পরিবর্তনের প্রয়োজন হলে উক্ত ব্যয় গ্রাহককে বহন করতে হবে।

v         প্রাক্কলন ও জামানতের অর্থ জমাদানের ৭(সাত) দিনের মধ্যে লোড বৃদ্ধি কার্যকর করা হবে। যদি লোড বৃদ্ধি করা সম্ভবপর না হয় তবে তার কারন জানিয়ে গ্রাহককে একটি পত্র দেয়া হবে।

 

খুঁটি/লাইন স্থানান্তর

v         খুঁটি/লাইন স্থানান্তর করতে হলে ৫০০/= টাকা সমীক্ষা ফি জমা দিয়ে আবেদন করতে হবে। সমীক্ষা অনুযায়ী স্থানান্তরের প্রাক্কলিত অর্থ আবেদনকারী কর্তৃক জমা সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

শ্রেণী ভিত্তিক বিদ্যমান বিদ্যুতের মূল্যহার

 

ক্রঃ নং

গ্রাহক শ্রেণী

ধাপ(কিঃওঃঘঃ) প্রকার

প্রতি ইউনিট দর (টাকায়

ডিমান্ড চার্জ

সার্ভিস চার্জ (টাকা)

ভ্যাট (নীট বিলের)

মিটার ভাড়া

মাসিক ন্যূনতম বিল (টাকা)

আবাসিক

০০- ১০০

৩.২৪

প্রতি কিঃ ওঃ ১৫/= অথবা ভগ্নাংশের  জন্য

১০/=

৫%

১০/=

১০৫/= মোট বিল

১০১ ৩০০

৩.৮৩

৩০১ ৫০০

৫.৮৬

৫০১বা তদুর্দ্ধ

৮.৭৭

বানিজ্যিক

সিঙ্গেল

 

 

 

-

৭.৩৩

প্রতি কিঃওঃ বা অংশের জন্য ২৫/= টাকা হারে

১০/=

৫%

১০/=

১৩১/=

মোট বিল

বানিজ্যিক তিনফেজ

-

৭.৩৩

প্রতি কিঃওঃ বা অংশের জন্য ২৫/= টাকা হারে

৩০/=

৫%

১০০/=

প্রতি কিঃওঃ১১৩০/=টাকা হারে।

দাতব্য প্রতিষ্ঠান

ধর্মীয় উপাসনালয় ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান

৩.৬২

প্রতি কিঃওঃ বা অংশের জন্য ২০/= হারে

১০/=

৫%

১০/=

১৪২/= মোট বিল

ক্লাব ইত্যাদি

৩.৬২

প্রতি কিঃওঃ বা অংশের জন্য ২০/= হারে

১০/=

৫%

১০/=

১৭৩/=

মোট বিল

সেচ

 

৩.২১

-

৩০/=

-

-

মৌসুমে মাসিক মিনিমান বিল প্রতি অশ্বশক্তি১২৫/= হারে তবে মৌসুমে ৩০০০/=টাকার কম নয়

ক্ষুদ্র শিল্প (জি,পি)

ডিমান্ড বিহীন

মিটারের লোড

 

৫.৬৭

প্রতি কিঃওঃ ১৫/=হারে ১২০/=টাকা-র কম নহে।

৭০/=

৫%

১ফেজ-১০/= ৩ফেজ-১০০/=

ডিমান্ড ছাড়া মিটারের ক্ষেত্রে মিনিমাম বিল প্রযোজ্য নহে

ক্ষুদ্র শিল্প

(জিপি)

ডিমান্ড মিটারের শোড

 

৫.৬৭

প্রতি কিঃওঃ ৪০/= হারে তবে চুক্তিবদ্ধ লোডের ৭০% এর কম নহে।

৬০/=

৫%

১০০/=

প্রতি কিঃওঃ৪৫/=টাকা হারে।

বৃহৎ শিল্প (এল,পি)

 

৫.৫৫

প্রতি কিঃওঃ (ডিমান্ড)৪৫/= হারে তবে চুক্তিবদ্ধ লোডের ৭০% এর কম নহে।

৪০০/=

৫%

 

মিনিমাম বিল প্রতি কেভিএ ৫৫/=টাকা হারে তবে ৫০০০/=টাকার কম নহে

রাস্তার বাতি

মিটার ছাড়া

৫.২৪

 

১৫/= প্রতি সংযোগ

৫%

 

নির্ধারিত বিল প্রতি মাসে ২৫০/=টাকা

 

বিঃ দ্রঃ

 

১। টেক্র্টাইল,দাতব্য চিকিৎসালয়-৫% (জুট,জুট কার্পেট শিল্প) এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কমপ্লেক্স এর বিদ্যুৎ বিলের উপর ৭.৫% হারে রিবেট বা রেয়াতী সুবিধা প্রদান করা হয়।

২। সেচ ও কৃষি ভিত্তিক শিল্প প্রতিষ্ঠানে বিদ্যুৎ বিলের ২০% রিবেট বা রেয়াতী সুবিধা প্রদান করা হয়।

৩। বিলে উল্লেখিত নির্ধারিত তারিখের মধ্যে বিল পরিশোধ না করিলে পরবর্তী ১০% বিলম্ব মাশুল সহ পরিশোধের নির্ধারিত তারিখের মধ্যে বিল পরিশোধ করিতে হয়। সেচ সংযোগের ক্ষেত্রে বিল তৈরীর ৬০ দিনের মধ্যে পরিশোধ না করিলে অতিরিক্ত ৫% বিলম্ব মাশুল আদায় করা হয়।

 

অবৈধভাবে বিদ্যুৎ ব্যবহার , মিটারে হস্তক্ষেপ, বাইপাস, বিনা অনুমতিতে সংযোগ গ্রহন ইত্যাদি ক্ষেত্রেআইনগত ব্যবস্থা

বিদ্যুৎ আইনের (Electricity Act, 1910 & As Amended ~The Electricity (Amendment) Act, 2006”)৩৯ ধারা অনুসারে এ ক্ষেত্রে ন্যুনতম ১ বছর হতে ৩ বছর পর্যন্ত জেল এবং ১০ হাজার টাকা জরিমানার বিধান রয়েছে। তাছাড়া, অবৈধভাবে বিদ্যুৎ ব্যবহারের জন্য প্রাক্কলিত/ ক্ষতিগ্রস্থ বিদ্যুৎ বিল প্রদান করতে হবে। এছাড়াও উক্ত বিদ্যুৎ ব্যবহারের দ্বারা যদি বিদ্যুৎ সরবরাহ সংস্থার বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম, মিটার, মিটারিং ইউনিট ইত্যাদি ক্ষতিগ্রস্থ হয় তবে ক্ষতিগ্রস্থ বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম, মিটার, মিটারিং ইউনিট ইত্যাদি পুনরায় সচল করা গেলে মেরামত খরচ অথবা সম্পুর্ণ ধ্বংসপ্রাপ্ত বা পুনরায় সচল করা যাবে না এরুপ সরঞ্জামের জন্য পুনঃস্থাপনের ব্যয়সহ প্রকৃত মূল্য আদায় করা হবে।

 

 

 

 

 

 

অবৈধ বিদ্যুৎ ব্যবহারের জন্য উপরোক্ত অর্থাদি ছাড়াও নিম্নোক্তহারে সাধারন জরিমানা দিতে হবে।

 

আবাসিক, বানিজ্যিক, দাতব্য প্রতিষ্ঠান, স্ট্রিট লাইট           ৫০০.০০

সেচ সংযোগ                                                    ২০০০.০০

শিল্প (৩০ কেভি এ পর্যন্ত)                                     ৫০০০.০০

শিল্প ( ৩০ হতে ৭৫ কেভি এ পর্যন্ত)                          ৭৫০০.০০

শিল্প (৭৫ কেভি এ এর উর্দ্ধে)                                ১৫০০০.০০

 

v        পিক সময়                        ঃ               বিকাল ৫টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত

v        অফ-পিক সময়      ঃ               রাত ১১টা থেকে পরদিন বিকাল ৫টা পর্যন্ত।

 

উপরোক্ত বিদ্যুতের মূল্যহারের সাথে ন্যুনতম চার্জ, ডিমান্ড চার্জ, সার্ভিস চার্জ ও অন্যান্য শর্তাবলীসহ মূল্য সংযোজন কর যথারীতি প্রযোজ্য হবে। বিদ্যুতের মূল্যহার সরকার কর্তৃক অনুমোদিত এবং পরিবর্তনযোগ্য।

গ্রাহকের নাম পরিবর্তনের পদ্ধতি

গ্রাহক ক্রয়সূত্রে/ ওয়ারিশসূত্রে/ লিজসূত্রে জায়গা বা প্রতিষ্ঠানের মালিক হলে সকল দলিলের সত্যায়িত ফটোকপি ও সর্বশেষ পরিশোধিত বিলের কপিসহ নির্ধারিত ফি  জমা করে আবেদন করতে হবে। সরোজমিন তদন্ত করে নাম পরিবর্তনের জন্য বিদ্যমান হারে নতুন নামে জামানত প্রদান করতে হবে।মৃত্যুজনিত কারন হলে স্থানীয় প্রতিনিধি সনদ এবং অপরাপর উত্তরাধিকারীদের লিখিত সম্মতি প্রয়োজন হবে। গ্রাহক জামানত বাবদ উক্ত বিল নির্ধারিত সময়ে পরিশোধ করে তার রশিদ  জমা দিলে ৭(সাত) দিনের মধ্যে নাম পরিবর্তন কার্যকর করা হবে।

 

 

গ্রাহকের জ্ঞাতব্য বিষয়

 

v   পিক-আওয়ারে বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হোন। আপনার সাশ্রয়কৃত বিদ্যুৎ অন্যকে আলো জ্বালাতে সহায়তা করবে।

 

v  সংযোগ বিচ্ছিন্ন এড়াতে নিয়মিত বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করুন এবং সারচার্জ পরিশোধের ঝামেলা থেকে মুক্ত থাকুন।

 

v  বিদ্যুৎ বিল সাশ্রয়কল্পে মানসম্মত এনার্জি সেভিং বাল্ব (CFL) ও বৈদ্যুতিক সরঞ্জাম ব্যবহার করুন।

 

v  টিউব লাইটে Electronic Ballastব্যবহার করে বিদ্যুৎ সাশ্রয় করুন।

 

v  বিদ্যুৎ একটি মূল্যবান জাতীয় সম্পদ। দেশের বৃহত্তর স্বার্থে এই সম্পদের সুষ্ঠু ও পরিমিত ব্যবহারে ভুমিকা রাখুন।

 

v  বৎসরান্তে পবিসের সদর দপ্তরে অথবা সংশ্লিষ্ট জোনাল অফিস বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের প্রত্যয়ন পত্র প্রদান করা হয়ে থাকে।

 

v  মিটার রক্ষণাবেক্ষনের দায়িত্ব আপনার। এর সঠিক সুষ্ঠু অবস্থা ও সীলসমূহের নিরাপত্তা নিশ্চিত করুন।

 

v  লোড শেডিং সংক্রান্ত তথ্য  সংশ্লিষ্ট এলাকার আওতাধীন কন্ট্রোল রুম/ অভিযোগ কেন্দ্র থেকে জানা যাবে।

 

v  বিদ্যুৎ চুরি ও এর অবৈধ ব্যবহার থেকে নিজে বিরত থাকুন ও অন্যকে নিবৃত করুন। বিদ্যুৎ চzুর ও এর অবৈধ ব্যবহার রোধে আপনার জ্ঞাত তথ্য ‘‘এক অবস্থানে সেবা কেন্দ্র/ অভিযোগ কেন্দ্র’’- এ অবহিত করে সহযোগিতা করা আপনার দায়িত্ব।

 

v  ইদানিং একটি সংঘবন্ধ অসাধু চক্র চালু লাইন হতে ট্রান্সফরমার/বৈদ্যুতিক যন্ত্রপাতি/তার চুরির সাথে জড়িত। সুতরাং আপনার এলাকার উপরোক্ত চুরি রোধে তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করুন এবং ট্রান্সফরমার/তার চুরির ক্ষেত্রে প্রতিরোধ গড়ে তুলুন।

 

বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্নকরনের ঝামেলা এড়াতে যথাসময়ে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করুন এবং অবৈধ বিদ্যুৎ ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন।

 

বিল পরিশোধ

সদর দপ্তর/জোনাল অফিসের ‘‘ এক অবস্থান সেবা’’ সংলগ্ন ক্যাশ শাখায় বিল পরিশোধ করতে পারবেন। তাছাড়া গোপালগঞ্জ পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি এর বিদ্যুৎ বিল সংগ্রহকারী ব্যাংক শাখা সমূহে বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করতে পারবেন।

 

বিদ্যুৎ বিভ্রাটের অভিযোগ

পবিসের নির্দিষ্ট অভিযোগ কেন্দ্র’’ অথবা এক অবস্থানে সেবা কেন্দ্র’’এ আপনার বিদ্যুৎ বিভ্রাটের অভিযোগ জানানো হলে আপনাকে অভিযোগ নম্বর ও নিস্পত্তির সম্ভাব্য সময় জানিয়ে দেয়া হবে। অভিযোগ নম্বরের ক্রমানুসারে আপনার বিদ্যুৎ বিভ্রাট দুরীভুত করার লক্ষ্যে ২৪ ঘন্টার মধ্যে নিস্পত্তির ব্যবস্থা নেয়া হবে। কোন কোন ক্ষেত্রে যদি নির্ধারিত সময়ে বিদ্যুৎ বিভ্রাট দুরীভুত করা সম্ভব না হয়, তার কারন গ্রাহককে অবহিত করা হবে।

 

বিল সংক্রান্ত অভিযোগ

বিল সংক্রান্ত যে কোন অভিযোগ যেমন চলতি মাসের বিল পাওয়া যায়নি,  বকেয় বিল, অতিরিক্ত বিল ইত্যাদির জন্য ‘‘এক অবস্থান সেবা’’ এ যোগাযোগ করলে তাৎক্ষনিক সমাধান সম্ভব হলে তা নিষ্পত্তি করা হবে। অন্যথায় একটি নিবন্ধন নম্বর দিয়ে পরবর্তী যোগাযোগের সময় জানিয়ে দেওয়া হবে এবং পরবর্তী ৭ দিনের মধ্যে নিষ্পত্তির ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

 

বিঃ দ্রঃ রশীদ ব্যতীত কোন ব্যক্তিকে টাকা দিবেন না।